fbpx
Oct 5, 2020
2090 Views

Forsage থেকে আয় করুন | দুনিয়ার একমাত্র ক্রিপটো ম্যাট্রিক্স এলগোরিদম প্ল্যানিং | ১০০% ডিসেন্টরালাইজ সাইট | ২০২০

Written by

চলুন আজকে আপনাদের সাথে শেয়ার করতে যাচ্ছি নতুন একটা সাইট যা ইতিমধ্যে ট্রাষ্ট ওয়ালেটের মাধ্যমে মার্কেটে এসেছে এবং আপনি তো এই ওয়ালেটকে চেনেন । এবং এটাও জানেন যে, এই ওয়ালেট কত বিশ্বস্ত একটা ক্রিপটো লেনদেনের সাইট 💘

More  Discuss Join Here Telegram

যে সাইটের কথা বলতে যাচ্ছি এটার নাম হল ফরসেজ । এবং এটা হল দুনিয়ার অন্যতম সেরা একটা ডিসেন্ত্রালাইজ সাইট যেখানে আপনি কাজ করতে পারবেন এবং ইনকাম করতেও পারবেন । তবে আপনাকে ট্রাষ্ট ওয়ালেটে কাজ করতে হবে । আপনি গতানুগতিকভাবে ক্রোম বা মজিলা ব্রাউজার ব্যবহার করতে পারবেন না । যে কারণে সাইট আরও বেশি নিরাপদ হয়েছে ।   মজার ব্যাপার হল, আপনার আয়ের সাথে সাথেই এটা ওয়ালেটে সরাসরি জমা হয় এবং সাইট আপনাকে টাকা দিবে কি দিবে না এমন কোন ভয় এখানে নেই । মানে হচ্ছে, আপনি ফরসেজে কাজ করবেন এবং আপনার টাকা জমা হবে ট্রাষ্ট ওয়ালেটে । সেজন্য প্রথমেই আপনাকে গুগল প্লে স্টোর থেকে ট্রাষ্ট ওয়ালেট ডাউনলোড করে নিতে হবে ।

 

  • Trust Wallet অ্যাকাউন্ট তৈরি

নিচের ছবিটা দেখে নেন যেন ভুলভাল কোন অ্যাপ ডাউনলোড না করেন  😁

এবার চলুন শুরু করা যাক আমাদের মূল মিশন –

১. এবার অ্যাপ ওপেন করুন । এবং নিচের মত ছবি দেখুন । যদি একই রকম দেখা যায় তাহলে পরের স্টেপে চলে যান । যেহেতু আপনার আগে অ্যাকাউন্ট নেই তাই  CREATE A NEW WALLET  চাপ দিন ।


২. Legal: নিচে একটা টিক মার্ক করা হয়েছে । আপনিও একটা টিক মার্ক করে পরের স্টেপে চলে যান ।

৩. Backup your wallet now: নিচে  আরেকটা টিক মার্ক দিন । আবারো পরের স্টেপে চলে যান ।

৪. এবার দেখুন অনেক গুলো ছোট ছোট শব্দ আছে । একদম সিরিয়ালভাবে সবগুলো নোট করে রেখে দিন । একবার যদি হারিয়ে যায় তাহলে আপনি শেষ । সরি, আপনার অ্যাকাউন্ট শেষ ! সবগুলো লেখা হয়ে গেলে পরের স্টেপে চলে যেতে হবে । এই স্টেপ দেখাতে চাইলেও দেখাতে পারলাম না । ট্রাষ্ট ওয়ালেট এটার স্ক্রিনশট নিতে দিলো না  😭

৫. যেগুলো সিরিয়াল ধরে লিখেছিলেন এবার দেখতে পাচ্ছেন সেগুলো এলোমেলো করে দেয়া হয়েছে । এই ১২ টা শব্দ এখন সিরিয়াল ধরে চাপ দিন এবং সাজিয়ে ফেলুন যেমনটা আগেরবার পেয়েছিলেন । কাজ শেষ ? ওকে গুড ! এবার নেক্সট বা যা আছে লেখা সেখানে চাপ দিন । আপনার অ্যাকাউন্ট করা হয়ে গেছে । 😍

এবার নিচের মত দেখতে পাবেন । এর মানে হল এটা আপনার DASHBOARD.

এবার আপনার অ্যাপটা বন্ধ করে নিন । তারপর পুনরায় আপনার অ্যাপে প্রবেশ করুন  । এখন আর বারবার লগিন করতে হবে না । যদি কোন ভাবে অ্যাপ মুছে যায় ফোন থেকে তাহলে যেই ১২ টা কোড লিখে রেখেছিলেন সেগুলো একটা করে লিখবেন এবং স্পেস দিয়ে সাজিয়ে লিখবেন এবং IMPORT করলেই আপনার আগের আইডিতে চলে যাবেন 😊

আপনার ট্রাষ্ট ওয়ালেটে প্রবেশ করুন এবং ইথারিয়াম ওয়ালেট বের করুন । বের করতে পারছেন না ? ওকে ছবি দেয়া ছাড়াই বলে দিচ্ছি, কি করতে হবে –

আপনি যখন অ্যাপে প্রবেশ করবেন তখন দেখবেন সামনে লিস্ট করে Ethereum, Bitcoin, BNB এবং আরও কিছু কয়েনের নাম দেখা যাচ্ছে ।

এবার সেখান থেকে Ethereum এ ক্লিক করুন ।

তারপর দেখতে পাচ্ছেন SEND, RECEIVE, COPY অপশন । এখান থেকে  Receive এ চাপ দিন । এবার দেখতে পাচ্ছেন একটা QR CODE এবং নিচেই একটা ওয়ালেট দেয়া ।

এবার চট করে নিচে লেখা দেখুন – COPY , SET AMOUNT , SHARE

এখান থেকে  COPY  তে চাপ দিন । এই ওয়ালেট আপনার নোটপ্যাড কিংবা যেকোনো জায়গায় রাখুন এবং এই ওয়ালেটে ১৫ ডলার নিয়ে আসুন কারো কাছ থেকে । দিতে না চাইলে মাইর দিবেন তাও নিতে হবে কিন্তু ! নয়ত কাজ হবে না ।

আমি ধরে নিচ্ছি, আপনি কাউকে অনুরোধ করে কিংবা মাইর দিয়ে ১৫ ডলার জোগাড় করে ফেলেছেন । এবার চলুন মূল মিশনে চলে যাই । বারবার মিশন শুনে আপনি ভাবতেছেন একবার তো মিশন শুরু করলাম আবার কিসের মিশন ? রাইট ? এটা হল আপনার চূড়ান্ত মিশন । এখন আমরা অ্যাকাউন্ট করবো এখানে । সেজন্য প্রসেসটা একদম ছবি সহকারে দেখাবো যেন আপনি ছবি দেখেই কাজ করতে পারেন ।

একটা ব্যাপার মন দিয়ে বুঝুন, এতক্ষণ আপনি সফলভাবে ট্রাষ্ট ওয়ালেট অ্যাকাউন্ট করেছেন । এবং আপনার ওয়ালেটে ডলার নিয়েছেন । এবার আমরা সাইটে অ্যাকাউন্ট করবো 😐

 

  • Forsage অ্যাকাউন্ট তৈরি

আমি ধরে নিচ্ছি আপনি এখন ট্রাষ্ট ওয়ালেট এর ড্যাশবোর্ডে রয়েছেন । এবার নিচের দিকে খেয়াল করুন আমি হলুদ বক্স করে দিয়েছি সেই আইকনে ক্লিক করুন ।

এখানে ক্লিক করলে আপনি ট্রাষ্ট ওয়ালেট এর ব্রাউজারে চলে যাবেন । ট্রাষ্ট ওয়ালেটের নিজস্ব ব্রাউজার রয়েছে । সেখানে চলে গেলে এরপর কি করবেন ?  আপনার বন্ধু কিংবা আমার রেফার লিঙ্ক এখানে বসিয়ে দিন এবং এন্টার করুন ।

১০০% কারো না কারো রেফারেলে জয়েন করবেন । নয়ত পস্তাবেন । কেন পস্তাবেন ? পরে বলতেছি । অপেক্ষা করেন । অনেক বড় পোস্ট । সব লিখে দেব ।

এবার আপনি উপরের মত একটা পেজ দেখতে পাবেন । এখানে জয়েন নাওতে ক্লিক করুন ।

এবার উপরের মত একটা পেজ পাবেন । সেখানে দেখুন একটা আইডি দেয়া আছে । এই আইডি হল আপনি যার রেফারে জয়েন করেছেন তার রেফার আইডি এখানে দেখা যাচ্ছে ।  এবার সরাসরি আপনি AUTOMATIC REGISTRATION এ ক্লিক করুন ।

 

আপনি শুধুমাত্র স্টেপ বাই স্টেপ ক্লিক করতে থাকুন । অন্য কোথাও ক্লিক করতে হবে না । এবার আপনার অ্যাকাউন্ট থেকে ১৫ ডলার কেটে নিবে অ্যাকাউন্ট ও নেটওয়ার্ক ফি বাবদ । সেজন্য আপনি উপরের ছবির মত APPROVE ক্লিক করুন ।

উপরের স্ক্রিনশটে যেমন বলেছি ঠিক সেভাবেই চুপ করে থাকুন কিছু সময় । আপনার অ্যাকাউন্ট প্রসেসিং চলছে ।

এবার উপরের ছবির মত AUTHORIZATION ক্লিক করুন । ক্লিক করলে আপনি মূল অ্যাকাউন্টে প্রবেশ করবেন । আপনার অ্যাকাউন্ট করা হয়ে গেছে ।

  • কিভাবে কাজ করবেন ? 
ফরসেজ কিভাবে কাজ করে এবং এটা খায় না মাথায় দেয় এসব যদি বুঝাতে চাই তাহলে আমার হয়ত লেখা শেষ হয়ে যাবে কিন্তু আপনি হা করে থাকবেন । তাই আমি এত ঝামেলাতে যাচ্ছি না । সরাসরি বাংলায় কাজ করার মত বুঝিয়ে দিচ্ছি ।
আপনি যখন এখানে ১৫ ডলার খরচ করে অ্যাকাউন্ট করবেন । তখন গড়ে ১২ ডলার অ্যাকাউন্টে ব্যয় হবে এবং বাকি টাকা নেটওয়ার্ক ফিতে কেটে নিবে । যাই হোক, এই টাকায় আপনাকে দুইটা স্লট দেয়া হবে ।
একটার নাম ফরসেজ ৩ এবং ফরসেজ ৪ । ফরসেজ ৩ অর্থ, আপনি এখানে ইনভেস্ট করার ৩ গুণ যুক্ত হবে এবং ফরসেজ ৪ হল, ৪ গুণ যুক্তের সমান ।  এই দুইটা থেকে আপনি আয় করবেন । এবং এখানে একটার পেছনে কাজ করলে অন্যটা একাকী কাজ করবে । যেমন, আপনি ফরসেজ ৩ এ আপনার অধীনে কাউকে জয়েন করালেন এতে করে ফরসেজ ৪ এ একাকী সেটা অ্যাড হয়ে যাবে এবং আপনার ইনকাম হবে ।
একজনের নিচে আরেকজন অ্যাড হলেই সেটা MLM হয় না । এই প্রক্রিয়ায় শুধু আপনার উপরেরজন লাভ করবে কিন্তু আপনি খাবেন হাড্ডি । কিন্তু ফরসেজ ম্যাট্রিক্স এলগোরিদম অনুযায়ী এখানে আপনি এবং আপনি যার রেফারে জয়েন করবেন দুজন সমান হারে লাভবান হবেন । যেহেতু এটা ডিসেন্ত্রালাইজ সাইট এবং ব্লকচেইনে যুক্ত হয়েছে তাই সাইট চলে গেলেও আপনার লস নেই । কারণ আপনার প্রতিটা ইনকাম ট্রাষ্ট ওয়ালেটে জমা হবে । সাইট শুধুমাত্র আপনার স্লটের হিসাব রাখবে এবং আপনি কত  আয় করছেন তার একটা হিসাব দেখাবে কিন্তু আপনার সকল আয় জমা হয়ে যাবে আপনার ট্রাষ্ট ওয়ালেটে । সেজন্যই এটা দুনিয়ার অন্যতম সেরা বিজনেস সাইট হিসাবে নাম করেছে ইতিমধ্যে এবং ধীরে ধীরে জনপ্রিয়তা অর্জন করছে । আরও কিছুদিন পরে দেখবেন সবাই চিনে ফেলবে ফরসেজকে 😍
চলুন এবার দেখি আপনি যদি আপনার বন্ধুকে এবং আরও কয়েকজনকে যদি জয়েন করান তাহলে আপনি কতটুকু লাভ করতে পারবেন !

মাত্রই বললাম সব বাদ দিয়ে ১২ ডলার খরচ হবে । এই ১২ ডলার ফরসেজ ৩ ও ৪ এ ৬ ডলার করে ভাগ হয়ে যাবে । এবং এই দুইটা হল আপনার জন্য স্লট । এবং অবশ্যই আপনি কারো না কারো রেফারে জয়েন করবেন । যদি না করেন তাহলে কোন কমিশন পাবেন না । সেক্ষেত্রে আপনি হবেন কপালপোড়া ।

উপরের ছবির ফরসেজ ৩ এর দিকে তাকান । উপরে একজন হচ্ছে আপলাইনার বা আপনি যার রেফারে জয়েন করেছেন । নিচে রয়েছেন আপনি ।

A1 – আপনি প্রথম একজনকে এখানে জয়েন করাবেন এবং সেখান থেকে ৬ ডলার কমিশন আপনার ট্রাষ্ট ওয়ালেটে সঙ্গে সঙ্গে চলে আসবে ।

A2 – এখানেও ঠিক A1 এর মতই হবে ।

A3 – এখানে যিনি জয়েন করবেন আপনার অধীনে, তার থেকে ৬ ডলার আপনি পাবেন না । এটা সরাসরি রিইনভেস্ট হিসাবে সরাসরি আপনার আপলাইনে চলে যাবে । পরোক্ষভাবে আপনিই পাচ্ছেন এটা । কিভাবে পাচ্ছেন সেটা পরে বলছি ।

এবার দেখুন ফরসেজ ৪ এর দিকে । এখানে,

A1 – ফরসেজ ৩  এ যিনি জয়েন করবেন তিনি অটো ফরসেজ ৪ এ চলে আসবে । আপনাকে এক্সট্রা এখানে কাউকে জয়েন করাতে হবে । না । এবং এই যে, A1  ফরসেজ ৪ এও চলে এলো এর ফলে তার থেকে ৬ ডলার কমিশন পাবে আপলাইনার । ফরসেজ ৩ এ যা আসবে সব আপনি পাবেন । এবং আপনার মাধ্যমে যারা জয়েন করবে তারাও ফরসেজ ৪ এ একাকী চলে যাবে এবং তার ভাগ আপলাইনার পাবে । এটাই হল ম্যাট্রিক্স এলগরিদম । মাথার উপর দিয়ে যাচ্ছে না ? হাহাহা ! এতকিছু বুঝতে হবে না । আপনি শুধু বন্ধুদের জয়েন করান তাহলেই হবে । এবং সবাই মিলে কাজ করুন ।

A2 – ফরসেজ ৩ এ সে ছিল এবং সে একাকী ফরসেজ ৪ এও চলে এসেছে ঠিক A1 এর মতন ।

এবার A1 জয়েন করাবে A1x and A1y কে । এবং এই যে দুজন জয়েন করলো, এখান থেকে প্রতি জয়েনে আপনি পাবেন ৬ ডলার করে মোট ১২ ডলার ।

আবার, A2 জয়েন করাবে A2x and A2y কে । এবং এই দুজনের ভেতর A2x এর থেকে ৬ ডলার আপনি পাবেন । কিন্তু A2y এর টাকা পাবে সরাসরি আপনার আপলাইনার মানে এটা সরাসরি রিইনভেস্ট হয়ে যাবে ।

এবার উপরের ছবিতে দেখুন, আপনি ইনভেস্ট করেছিলেন ১২ ডলার কিন্তু আপনি ইনকাম করলে ফরসেজ ৩ ও ৪ থেকে মোট ৩০ ডলার । মজার না ? এটা কিন্তু এখানেই শেষ না । যারা জয়েন করবে এবং তারা যখন কাউকে জয়েন করাবে কিংবা যদি আপনার আপলাইনে যারা আছে তারাও যদি কাজ করতে থাকে তাহলেও আপনি কমিশন পেতে থাকবেন । মোটকথা, কাজ করলেই সবার ইনকাম হতে থাকবে । যারা বিভিন্ন এমএলএম কোম্পানিতে কাজ করেছেন তারা কিন্তু আশা করি বুঝে ফেলেছেন এমএলএম এমন না । সেখানে কেবল আপলাইনার লাভ করে কিন্তু এই ম্যাট্রিক্স প্ল্যানিংয়ে সবাই সমানহারে লাভ করবে । আবারো বলে দিচ্ছি আপনার সকল ইনকাম ইনস্ট্যান্ট ট্রাষ্ট ওয়ালেট এ চলে আসবে এবং যেহেতু এটা ডিসেন্ত্রালাইজ সাইট এবং এটাকে কেউ নিয়ন্ত্রণ করছে না তাই এটা যে দীর্ঘদিন সার্ভিস দিয়ে যাবে এটা আশা করা যায় ।

এটা যদি শর্ট টাইম কাজ করতো তাহলে ট্রাষ্ট ওয়ালেট কোনদিন মার্কেটে নিয়ে আসতো না, কারণ তারা কোটি টাকার ব্যবসা লোকসান করবে না এসব সামান্য একটা সাইটের জন্য । কারণ ট্রাষ্ট ওয়ালেটকে আমরা চোখবুজে বিশ্বাস করি তার সার্ভিসের কারণেই  ।

এবার চলুন জেনে নিই রিইনভেস্ট কি ?

ফরসেজে আপনাকে দুইটা লাইন দেয়া হয়েছে ফরসেজ ৩ ও ৪ এবং আপনি এখানে মাত্র প্রথম স্টেজ দেখলেন । এই যে, ১২ ডলার আপনি সরাসরি পেলেন না, এটা আপনার পরের স্টেজে জমা হবে এবং নতুন আরেকটা স্লট খুলে যাবে । প্রতি স্লটে প্রায় ১০/১২ টা লেভেল । এই প্রতি লেভেলে আপনি জয়েনিং কমিশন এবং স্লট কমিশন বাবদ আয় করতে পারবেন অনেক টাকা । নিচের ছবিটা দেখুন –

 

Earning Graph

যদি এখানে সবগুলো লেভেল সম্পন্ন হয় এবং আপনার আপলাইনার এবং আপনার নিচে যারা থাকবে সবাই ঠিকমত কাজ করে তাহলে আপনারা আয় করবেন ফরসেজ ৩ এবং ফরসেজ ৪ মিলিয়ে মোট
৬১৩ + ৮১৭ = ১৪২৭ ইথারিয়াম । আপনি জানেন যে, মার্কেটে এখন ইথারের দাম অনেক ভালো এবং এক ইথার সমান ২৫০ ডলারের সমান । যা কম বেশি হতে থাকে । তারপরও আপনি অনেক টাকা আয় করতে পারবেন । শুধু আপনাকে যা করতে হবে সেটা হচ্ছে, একটু একটিভ হয়ে কাজ করতে হবে । তাহলেই বাকিটা আপনার আপলাইনার এবং নিচের যারা আছে সবাই করে ফেলবে ।

উপরের যে Income Graph এর ছবি দেখতে পাচ্ছেন এটা শুধুমাত্র আপনার ১ম স্টেজের আয় এবং এইভাবে প্রতিনিয়ত আয় হতেই থাকবে ।

একবার চিন্তা করুন, এখানে মাত্র ১৫ ডলার দিয়ে জয়েন করেছেন এবং এত টাকা আয় করছেন তার উপর পেমেন্ট নিয়ে কোন চিন্তা নেই । যা আয় করবেন সঙ্গে সঙ্গে আপনার ওয়ালেটে চলে আসবে এবং আপনি চাইলেই ইনস্ট্যান্ট ট্রাষ্ট ওয়ালেট থেকে বিটকয়েন বা কয়েনবেসে নিয়ে নিতে পারবেন । এরচেয়ে সুবিধা আর কোন সাইট দিবে একবার চিন্তা করুন ।

এখানে আপনি চিন্তা করতে পারেন, আপনারা শত  শত লোক হয়ত আমার রেফারে জয়েন করবেন এবং সবার থেকে আপনি ৬ ডলার করে আয় করে ফেলবো এবং অনেক টাকা হয়ে যাবে । না, আমি আপনার নিচে ৩ জন রেখে বাকি যারা আসবে তাদের ওই ৩ জনের অধীনে সাজিয়ে দেবো । মানে হচ্ছে সবাই সবার রেফারে জয়েন করবে । যা আমাদের ১২ টা লেভেল দ্রুত শেষ করতে সাহায্য করবে এবং অনেক টাকা সবাই আয় করবে ।

More  Discuss Join Here Telegram

এছাড়াও আপনাদের কাজ বুঝানোর জন্য বাংলাদেশ থেকে রয়েছে একদল চৌকস মার্কেটিং এজেন্ট । যারা টেলিগ্রাম গ্রুপে আপনাদের কাজ বুঝাবে । কারণ আপনারা এবং আমরা সবাই একে আরেকজনের সাথে কাজ করবো কারণ এতে সবাই লাভবান হবে নয়ত আমি কিংবা কেউ যদি একা লাভ করতে চায় তাহলে খুবই সামান্য লাভ হবে । যা আপনারা উপরেই দেখতে পেয়েছেন ।

সবাইকে জানিয়ে রাখা হচ্ছে, আপনারা কেউ কারো রেফারে আগেই জয়েন করবেন না । কারণ, যারা কাজ করবেন তারা সবাই টেলিগ্রামে জয়েন করবেন তারপর সবাইকে একে অপরের অধীনে সাজিয়ে দেয়া হবে । যেন কারো মন খারাপ না হয় । আশা করি ভালো কিছু হবে ।

লেখাটা অনেক বড় হয়ে গেল । আসলে এত বড় লেখা ছাড়া আপনি বুঝতেও পারতেন না । তাই আপনার জন্যই লেখা হল । ভালো থাকবেন । আল্লাহ হাফেজ !

More  Discuss Join Here Telegram

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *