Android এ জিরো থেকে হিরো [পর্ব-০৩] :: Xposed Installer ও এর ইন্সটলেশন করা

Android এ জিরো থেকে হিরো [পর্ব-০১] :: নতুনদের জন্য কিছু দিকনির্দেশনা 

Android এ জিরো থেকে হিরো [পর্ব-০২] রুট করার পদ্ধতি 

সুপ্রিয় ভিউয়ার, আসসালামু আলাইকুম। আশা করি সবাই ভালো আছেন।

টিউন এর টাইটেল দেখেই হয়ত বুঝেই গেছেন এটা এন্ড্রয়েড নিয়ে চেইন বা সিরিজ টিউন।

Android

বর্তমানের জনপ্রিয় মোবাইল অপারেটিং সিস্টেম। আর ওপেন সোর্স হওয়ায় এর মোড / চেঞ্জ সবাই করতে পারে। আমার এই সিরিজের মাধ্যমে নতুনদের কে সঠিক ভাবে কাজ করার প্রক্রিয়া, ধাপ ও বিভিন্ন ট্রিক সম্পর্কে জানানো হবে। তাই আশা করি সাথেই থাকবেন।
তার আগে একটা ধাপ জেনে নিন যেটা সবার জানা উচিৎ। এই ধাপেধাপে কাজ করলে ফোন নিয়ে কাস্টোমার কেয়ারে দৌড়াদৌড়ি করতে হবে না (আমার মনে হয়)
*
*
রুট > Xposed > কাস্টম রিকভারী > স্টক রমের ব্যাকাপ > ফার্মওয়ার ব্যাকাপ (Optional) > নতুন রম পোর্ট > নতুন রম দেওয়া.
*
*
আমার এই সিরিজে এই ধাপ গুলো বেশ ভালোভাবেই বলা হবে। অনেকে হয়ত এই ধাপ গুলো নিয়ে বিভিন্ন মত প্রকাশ করবে তাদের উদ্দ্যেশেঃ আমি আরো অনেক জিনিস স্কিপ / বাদ দিয়ে ছোট করে নিয়েছি।

আজ সিরিজ এর তৃতীয় পর্ব। আর এই পর্ব হচ্ছে Xposed Installer ও এর ইন্সটলেশন পদ্ধতি নিয়ে নিয়ে। যদি কোন প্রশ্ন থাকে তো টিউমেন্ট ও ফেসবুকে যোগাযোগ করতে পারেন

তো চলুন শুরু করা যাক।

প্রথম কথাঃ

আমি খুব ব্যস্ত থাকা সত্তেও টিউন চালিয়ে যাচ্ছি। এতে কোন ভুল ভ্রান্তি হওয়াই স্বাভাবিক। অনেকের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর বিস্তারিত দিতে পারছি না।
আজকে আমার কাস্টম রিকভারী নিয়ে আলোচনা করা উচিৎ। তবুও Xposed নিয়ে টিউন করছি। এর পর কাস্টম রিকভারী তারপর Xposed মডিউলে যাব। আশা করি বুজতে পারছেন।

Xposed Installer:

এটা কি সাধারনত সবাই জানে। তবু না জেনে থাকলে বলছিঃ এটা একটা “মডিউল রানার” যার মাধ্যমে আপনার ফোনে বিভিন্ন মডিউল রান করতে পারবেন। এবং ফোন কে রিস্ক ফ্রি কাস্টোমাইজ, বিভিন্ন অ্যাপ কে কাস্টোমাইজ, ফোনকে স্পিডে চালাতে ইত্যাদি করতে পারবেন। যা ধারাবাহিক ভাবে জানানো হবে। ফোনে Xposed Installer এর কোন কাজ নেই যতক্ষন পর্যন্ত আপনি মডিউল ইউজ না করবেন। এটা একটা সেতুর মত। এটা নদীর উপর থাকলে কোন কাজের না যতক্ষন পর্যন্ত আপনি এটার উপর দিয়ে হাটবেন না।
আপনি যদি রুটের কাজে নতুন হোন এবং রিস্ক ফ্রি কাজ করতে চান তাহলে আপনাকে সবাই Xposed ব্যবহারের কথা বলবে।

Xposed ইন্সটল পদ্ধতিঃ

ইন্সটল পদ্ধতি সাধারনত দুই ধরনের।
১. এন্ড্রয়েড কিটক্যাট পর্যন্ত একরকম।
২. ললিপপ থেকে উপরের ভার্সনে আরেক রকম।

১. কিটক্যাট পর্যন্তঃ

এই ভার্সন গুলোতে Xposed ইন্সটল দেয়া খুব সোজা।
এখান থেকে ডাউনলোড করুন Official Site. তাই সবসময় আপডেট টাই পাবেন। অন্য সাধারন অ্যাপ এর মত ইন্সটল করে ওপেন করুন। Framework এ ক্লিক করুন। তারপর Install/Update এ ক্লিক করুন। রুট পারমিশন চাইবে। পারমিশন দিন/Grant করুন। সাকসেসফুল হলে ফোন রিবুট দিন। হয়ে গেল ইন্সটলেশন কম্পলিট।

২. ললিপপ থেকে উপরেঃ

এর জন্য আপনার ফোনে কাস্টম রিকভারী থাকা লাগবে।(এর পরের কাস্টম রিকভারী নিয়ে হবে) পদ্ধতিটা অন্য রকম হলে খুব সোজা। এই লিংক থেকে Flashable Zip ডাউনলোড করে নিন।
Android 5.0= sdk 21
Android 5.1= sdk 22
Android 6.0= sdk 23
ফোনের মডেল অনুযায়ী ডাউনলোড করে নিন।
কাস্টম রিকভারীতে যান। সেখান থেকে Flashable জিপ ফাইল ফ্লাশ করুন। সাকসেসফুল হলে ফোন রিবুট দিন। প্রথম বার চালু হতে সময় নিলে ব্যাটারি খুলে আবার চালু করুন। ব্যস হয়ে গেল আপনার Xposed ইন্সটল করা।

শেষ কথাঃ

যারা ললিপপ বা তার আপগ্রেড ভার্সন ইউজ করছেন তারা মনে করছেন কাস্টম রিকভারী নিয়েই আগে আলোচনা করা উচিৎ। কিন্তু আপনি যদি গুগলে একটু ঘাটাঘাটি করে কাস্টম রিকভারী সম্পর্কে জেনে নেন তবে আমার পরের টিউন এ আপনি অনেক ভাল বুঝবেন। তাই একটু গুগলসার্চ করে কাস্টম রিকভারী সম্পর্কে জানুন।

আরো প্রশ্ন থাকলে টিউমেন্ট বক্স